নিজেই তৈরি করুন ৫০০ ক্যালোরির প্রোটিন শেক
ঘরোয়া ভাবে প্রোটিন শেক (protein shake) বা ভিটামিন সাপ্লিমেন্টস বানানোর উপায়। iamtoto

নিজেই তৈরি করুন ৫০০ ক্যালোরির প্রোটিন শেক

আজকে আমি আপনাদেরকে বলবো, কি ভাবে অতি সহজেই ঘরে বসেই প্রোটিন শেক বা ভিটামিন সাপ্লিমেন্টস বানানো যায়। আর এতে ক্যালোলির পরিমাণ কতটুকু থাকবে।

প্রোটিন শেক নিয়ে আজকে বিস্তারিত আলোচনা করা হবে। আশাকরি, এই পোষ্টি পড়ার পড়ে আপনি প্রোটিন শেক সম্পর্কে বিস্তারিত ধারনা পাবেন।

আমাদের মাঝেই অনেকেই আছি, যারা বেশি কিছু খেতে পারি না বা একটু খেলেই পেট ভরে যায়।

যার ফলে শরীরের ওজন দিন দিন কমতে শুরু করে।তাই যারা এই ধরনের সমস্যায় আছেন, তারা এই প্রোটিন শেক খেতে পারেন।

যারা ওজন বাড়াতে চান, তারা প্রতিদিনের খাবারের সাথে অতিরিক্ত এই প্রোটিন শেক নিলেই, এক মাসের মধ্যেই আপনার শরীরের পরিবর্তন দেখতে পারবেন।

তাই যারা শরীরের ওজন বাড়াতে চান, তারা এই টি নিতে পারেন।

প্রোটিন শেক রেসেপি

  • দুধ ২৫০ মিলি
  • একটি কলা বড় সাইজ এর
  • ওটস – ৬০ গ্রাম / কয়েকটি আঙ্গুর ফল।
  • দই -১০০ গ্রাম
  • পিনাট বাটার – পরিমান মত।
  • আপনি চাইলে আপনার পছন্দের যে কোন সাপ্লিমেন্টও এর সাথে যোগ করতে পারেন।

এই প্রোটিন শেক রেসেপি এ রয়েছে মোট ৫০০ ক্যালোরি। এর ফলে আপনার যদি দৈনিক ২০০০ হাজার ক্যালোরি দরকার হয়,

আপনি এই প্রোটিন শেক বা ভিটামিন সাপ্লিমেন্টস থেকেই পেয়ে ৫০০ ক্যালোরি। সুতরাং আপনার নির্দিষ্ট ক্যালোরির চাহিদা আপনি খুব সহজেই পূরন করতে পারবেন।

দিনে ২ বার খেলেই আপনার ১০০০ ক্যালোরি চাহিদা পূরন হয়ে যাবে।

সবগুলো উপাদান একটি ব্লেন্ডারে নিয়ে ১/২ মিনিট ব্লেন্ড করে নিন। তারপর নিশ্চিন্তে পান করুন। আমি নিশ্চিত হয়ে বলতে পারি,

আপনার এই রেসিপি টি অনেক ভাল লাগবে। আমি নিজে এটি প্রতিদিন খাই । এই প্রোটিন শেক এর স্বাদ সত্যিই অসাধারণ।

আপনি যদি ঘরোয়া উপায়ে ১ মাসের ভিতরে , ডায়েট প্লান ফলো করে শরীরের ওজন বাড়াতে চান। তাহলে এই পোষ্টি পড়তে পারেন।

প্রোটিন শেক খাওয়ার নিয়ম

প্রতিদিন একবার খেলেই হবে। তবে, আপনি যদি খুব দ্রুত শরীরের ওজন বাড়াতে চান।

তাহলে দিনে দু বার খাবেন। এবং সেই সাথে সারাদিন অনান্য খাবারের পরিমাণও কিছুটা বাড়ানোর চেষ্টা করবেন।

তবে মনে রাখবেন, প্রোটিন শেক দিনে দুই বার এর বেশি না খাওয়াই ভাল।

তাহলে, আর দেরি কেন, ঘরে বসে এখন নিজেই বানিয়ে ফেলুন প্রোটিন শেক। এবং নিয়মিত পান করলে এক মাস পরে দেখবেন, আপনার শরীরের অভাবনীয় পরিবর্তন হয়েছে ইনশাআল্লাহ।

এইরকম পোষ্ট এবং ভিডিও নিয়মিত দেখতে আমাদর ইউটিউব ফেসবুক ও ইন্স্ট্রাগ্রাম পেজ কে অনুসরণ করার জন্য অনুরোধ করা হলো

আপনি যদি নতুন কোন ব্যবসা করতে চান। তাহলে আমাদের এই পোষ্টি পড়ে দেখতে পারেন।

Leave a Reply